দুই দলের ওয়েবসাইট – প্রথম দর্শন

আর কয়েকদিন পরই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচন। এই নির্বাচনের প্রচারণায় ব্যস্ত বড়ু দুই দলের দুই নেত্রী, সেই সাথে দুই দলের অন্যান্য নেতা-পাতি নেতা এবং কর্মীরা। এবারের নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ স্বপ্ন দেখাচ্ছে ডিজিট্যাল বাংলাদেশ গড়ার। মহাজোট ক্ষমতায় গেলে তারুন্যের শক্তিকে ব্যবহার করে ডিজিট্যাল বাংলাদেশ গড়া হবে, কর্মসংস্থান করা হবে, দ্রব্যমূল্যের দাম কমানো হবে, ইত্যাদি অনেক প্রতিশ্রুতিই আছে  আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহারে। অন্যদিকে বাংলাদেশ জাতয়তাবাদী দল – বিএনপি’র নির্বাচনী ইশহেতারে ডিজিট্যাল বাংলাদেশের কথা বলা হয়নি। কারণ জানা গেল কয়েক দিন পরই – বিগত জোট সরকার ইতোমধ্যেই ডিজিট্যাল বাংলাদেশ গড়ে ফেলেছেন!
এই ডিজিট্যাল বাংলাদেশের সূত্র ধরে একটু আগ্রহ হলো তাদের ওয়েবসাইটের দিকে তাকানোর। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ওয়েবসাইটের ঠিকানা – http://www.albd.org। এটি তে পদার্পন করে শেখ হাসিনার হাস্যোজ্জ্বল মুখ এবং সেই সাথে সর্বশেষ সংবাদ নজরে পড়বে। পুরো সাইটটি গড়ে উঠেছে জুমলা! কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম ব্যবহার করে। জুমলা! কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম বেশ শক্তিশালী এবং বহুল ব্যবহৃত একটি কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম। ব্যক্তিগতভাবে আমি এটি পছন্দ করি এবং অন্যদের এটি ব্যবহারে আগ্রহী করে তুলি। আওয়ামী লীগ এটি ব্যবহার করছে দেখে ভাল লাগল। আর এই কনটেন্ট ম্যানেমেন্ট সিস্টেম ব্যবহার করছে বলে তাদের সাইটে অভ্যাগতদের জন্য দেয়া নিবন্ধাবলীও বেশ সুবিন্যস্ত।

অন্যদিকে বিএনপি’র ওয়েবসাইটের ঠিকানা http://www.bnpbd.com। এখানে .com ডোমেইন কেন ব্যবহার করা হলো বোঝা গেল না। .com ডোমেইন ব্যবহৃত হয় বানিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের জন্য। বিএনপি কি বানিজ্যিক প্রতিষ্ঠান? হতেও পারে! যদি bnp.org কিংবা bnpbd.org না পাওয়া যেত তাহলে bnp.org.bd ব্যবহার করতে বাধা কোথায়?

এবার তাকানো যাক প্রথম পাতার দিকে। পুরো পাতা জুড়ে বিএনপি নেত্রীর হাস্যোজ্জ্বল মুখ, বিএনপির মনোগ্রাম এবং তাদের এবারের নির্বাচনী শ্লোগান ‘দেশ বাঁচাও, মানুষ বাঁচাও’। পুরোটিই একটি ইমেজ হিসেবে ধীরে ধীরে আপনার ব্রাউজারে লোড হবে। অন্যান্য পাতায় গেলেও দেখতে পাবেন একই ধরনের ইমেজের ব্যবহার, কোনো টেক্সট নেই। About BNP লিঙ্কে ক্লিক করলে দেখতে পাবেন বিএনপি’র সংক্ষিপ্ত ও অসমাপ্ত ইতিহাস। সেখানে শুরু হয়েছে জাগদল গঠন থেকে এবং ১৯৭৯ সালের নির্বাচনে জেতার মাধ্যমে। কিন্তু তার আগে মেজর জিয়াউর রহমান কীভাবে ক্ষমতায় এলেন, উর্দি পরে কী করলেন, তার কোনো কথা নেই। উর্দি পরেই তিনি যে জাগদল/বিএনপি গড়ে তোলেন এবং নির্বাচন করেন সে কথাও নেই সেখানে। এখানে বিএনপি’র জনপ্রিয়তার কারণ বর্ণনা করতে গিয়ে বলা হয়েছে ‘আওয়ামী-বাকশালের হাত থেকে নাজাত লাভের পাশাপাশি সামরিক বিলুপ্তির প্রধান অবলম্বন হিসেবে কাজ করে বিএনপি।’ আওয়ামী-বাকশালের নাজাত থেকে মুক্তি না হয় বোঝা গেল, কিন্তু ‘সামরিক বিলুপ্তি’ বিষয়টি কী? এটি কি সামরিক বাহিনীর বিলুপ্তি, নাকি সামরিক শাসনের বিলুপ্তি? সামরিক শাসনের বিলুপ্তি হলে সেই সামরিক শাসনের পেছনে কে ছিল? এরকম আরো অনেক প্রশ্নের জন্ম দেবে এই সাইটে দেয়া বিভিন্ন তথ্য।
আওয়ামী লীগের ওয়েবসাইটে About AL | Constitution ক্লিক করলে দেখতে পাবেন আওয়ামী লীগের দলীয় সংবিধান, অন্যদিকে বিএনপি’র সাইটে রয়েছে Consititution নামের লিঙ্ক। তাতে ক্লিক করলে ইমেজ লোড হতে থাকবে। আমি ৫ মিনিট অপেক্ষা করেও সেটি কম্পিউটারে দেখতে পাই নি। যা দেখতে পেয়েছি তা নিচের চিত্রে দেখালাম।

এবারের নির্বাচনের জন্য আরেকটি ওয়েব সাইট তৈরি করেছে বিএনপি। Media Cell 2008 লিঙ্কে ক্লিক করলে আপনি চলে যাবেন http://www.votebnp.net  সাইটে। এর কিছু অংশ অবোধ্য – সম্ভবত বিজয় ফন্ট ব্যবহারের কারণে। দেখুন কেমন দেখতে পেলাম আমার কম্পিউটারে (অনেকদিন ধরে বিজয় ব্যবহার করি না, অভ্র দিয়ে ইউনিকোড ব্যবহার করি):

আমি কোনো দল করিনা। এ পর্যন্ত কখনো ভোট দেয়ার সুযোগ হয়নি। এবারই প্রথম ভোটার হতে পেরেছি। ভোটার হয়ে আরেক সমস্যায় পড়েছি কাকে ভোট দেব? বড় দুই সম্পর্কে জানার জন্যই এদের সাইটে ঢুঁ মেরেছি। যা দেখতে পেয়েছি তাই এখানে তুলে ধরলাম। মনে রাখবেন যে এখানে সাইটের টেকনিক্যাল দিক নিয়েই কেবল সামান্য আলোকপাত করেছি, তাদের রাজনৈতিক দর্শন কিংবা অতীত ইতিহাস নিয়ে নয়। আর এখান থেকেই আপনার হয়ত বুঝতে পারবেন কোন দল পারবে ডিজিট্যাল বাংলাদেশ গড়তে।

Leave a Reply

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s